জিতল ভারত, আর টেস্টের ‘বিজ্ঞাপন’ বানাল অস্ট্রেলিয়া Reviewed by Momizat on . জয়ের সুবাস পেতে পেতে ছিল হারের শঙ্কা। অশ্বিন তা দূর করার পর কোহলির উল্লাস। • অ্যাডিলেড টেস্টের শেষ দিনে রোমাঞ্চের পসরা সাজিয়ে অস্ট্রেলিয়াকে ৩১ রানে হারিয়েছে ভার জয়ের সুবাস পেতে পেতে ছিল হারের শঙ্কা। অশ্বিন তা দূর করার পর কোহলির উল্লাস। • অ্যাডিলেড টেস্টের শেষ দিনে রোমাঞ্চের পসরা সাজিয়ে অস্ট্রেলিয়াকে ৩১ রানে হারিয়েছে ভার Rating: 0
You Are Here: Home » ক্রিকেট » জিতল ভারত, আর টেস্টের ‘বিজ্ঞাপন’ বানাল অস্ট্রেলিয়া

জিতল ভারত, আর টেস্টের ‘বিজ্ঞাপন’ বানাল অস্ট্রেলিয়া

জয়ের সুবাস পেতে পেতে ছিল হারের শঙ্কা। অশ্বিন তা দূর করার পর কোহলির উল্লাস।

• অ্যাডিলেড টেস্টের শেষ দিনে রোমাঞ্চের পসরা সাজিয়ে অস্ট্রেলিয়াকে ৩১ রানে হারিয়েছে ভারত
• ভারত : ২৫০ ও ৩০৭
• অস্ট্রেলিয়া: ২৩৫ ও ২৯১

জিততে হলে অ্যাডিলেডে ইতিহাস গড়তে হতো অস্ট্রেলিয়াকে। লক্ষ্য ছিল ৩২৩ রানের। কাল এই লক্ষ্যে ব্যাটিংয়ে নেমে ৪ উইকেটে ১০৪ রানে চতুর্থ দিন শেষ করেছিল অস্ট্রেলিয়া। শেষ দিনের সমীকরণ ছিল—জিততে হলে অস্ট্রেলিয়াকে করতে হবে আরও ২১৯ রান। আর ভারতের দরকার ছিল বাকি ৬ উইকেট। আজ পঞ্চম ও শেষ দিনে খেলার প্রায় ১৯ ওভার বাকি থাকতে ৩১ রানের জয় পেয়েছে ভারত। তার আগে অস্ট্রেলিয়া ২৯১ রানে অলআউট হলেও পেয়েছে জয়ের সুবাস। এই না হলে টেস্ট ক্রিকেট!

টেস্ট ক্রিকেট কতটা রোমাঞ্চকর, তা বোঝা গেল অ্যাডিলেড টেস্টের শেষ দিনে। দুই দলের চোয়ালবদ্ধ লড়াইয়ে শেষ পর্যন্ত ভারত জিতলেও জয়টা আসলে ক্রিকেটেরই। গ্যালারির প্রতিটি দর্শক দুই দলের এই রোমাঞ্চকর লড়াই তারিয়ে তারিয়ে উপভোগ করেছেন। সত্যিই চার ম্যাচ সিরিজের এই প্রথম ম্যাচ টেস্ট ক্রিকেটের বিজ্ঞাপন হয়েই থাকল।

সেই বিজ্ঞাপনের চুম্বক অংশ হয়ে থাকবে অস্ট্রেলিয়ান ব্যাটিংয়ের লোয়ার অর্ডার। আজ শেষ দিনে সকালের সেশনের শুরুতে ১১ রান তুলতেই আগের দিনের অপরাজিত ট্রাভিস হেডকে (১৪) হারায় অস্ট্রেলিয়া। তাঁকে তুলে নেন ইশান্ত শর্মা। অস্ট্রেলিয়ার স্কোর তখন ৫ উইকেটে ১১৫। এরপর দলীয় ১৫৬ রানে শন মার্শও (৬০) জসপ্রীত বুমরার শিকার হয়ে ফিরলে অস্ট্রেলিয়ান ব্যাটিংয়ের লেজ বেরিয়ে পড়ে। আর এই ‘লেজ’ ছাঁটতেই ঘাম ছুটে গেছে ভারতীয় বোলারদের। বলা ভালো, অস্ট্রেলিয়ার লোয়ার অর্ডার আরেকটু হলে দলকে অবিস্মরণীয় এক জয় এনে দেওয়ার পথেই ছিল।

আগের দিনের দুই অপরাজিত ব্যাটসম্যান শন মার্শ ও ট্রাভিস হেডের ৩১ রানের জুটি ভাঙার পর বাকিরা জানবাজি রেখে লড়েছেন। বাকি পাঁচটি উইকেট জুটিতেই ন্যূনতম ৩০ রানের পার্টনারশিপ গড়েছেন সবাই। ষষ্ঠ উইকেটে অধিনায়ক টিম পেইন-শন মার্শ (৪১), সপ্তম উইকেটে পেসার কামিন্সকে সঙ্গে নিয়ে আরও ৩১ রানের জুটি উপহার দেন পেইন, এরপর অষ্টম উইকেটে দুই পেসার মিচেল স্টার্ক ও কামিন্স মিলে গড়েছেন ৪১ রানের জুটি। নবম ব্যাটসম্যান হিসেবে কামিন্স যখন আউট হলেন জয় থেকে অস্ট্রেলিয়া তখনো ৬৪ রানের দূরত্বে। ওই পরিস্থিতিতেও ভারতের জয় দেখেছেন সবাই। সেই দেখায় ভুল ছিল না তবে শেষ উইকেটজুটিতে নাথান লায়ন ও জস হ্যাজেলউড জুটি আর কিছুক্ষণ টিকলে ভুল হতেও পারত। দশম উইকেটে যে দুজন গড়েছেন ৩২ রানের জুটি!

About The Author

Number of Entries : 2653

Leave a Comment

মুক্তগাছা ভবন, বাড়ি নং -১৩, ব্লক -বি, প্রধান সড়ক, নবোদয় হাউজিং, আদাবর, ঢাকা-১২০৭; সম্পাদক ও প্রকাশক; আলহাজ্ব মোঃ সাদিকুর রহমান বকুল ; জাতীয় দৈনিক আজকের নতুন খবর;

Scroll to top