ডেঙ্গু: ভারত থেকে বিশেষজ্ঞ আসছে Reviewed by Momizat on . ডেঙ্গু নিরাময়ে অভিজ্ঞতা কাজে লাগাতে ভারত থেকে বিশেষজ্ঞ আনা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলাম। এছাড়া যত দ্রুত সম্ভব ডেঙ্গু নিয়ন্ত্ ডেঙ্গু নিরাময়ে অভিজ্ঞতা কাজে লাগাতে ভারত থেকে বিশেষজ্ঞ আনা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলাম। এছাড়া যত দ্রুত সম্ভব ডেঙ্গু নিয়ন্ত্ Rating: 0
You Are Here: Home » জাতীয় » ডেঙ্গু: ভারত থেকে বিশেষজ্ঞ আসছে

ডেঙ্গু: ভারত থেকে বিশেষজ্ঞ আসছে

ডেঙ্গু: ভারত থেকে বিশেষজ্ঞ আসছে

ডেঙ্গু নিরাময়ে অভিজ্ঞতা কাজে লাগাতে ভারত থেকে বিশেষজ্ঞ আনা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলাম। এছাড়া যত দ্রুত সম্ভব ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে কার্যকর নতুন ওষুধ আনা হবে বলেও জানান তিনি।

বৃহস্পতিবার সচিবালয়ে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে ঢাকার দুই সিটি করপোরেশনের মেয়র ও বিশিষ্ট চিকিৎসকদের নিয়ে আন্তঃমন্ত্রণালয় সভা শেষে এক প্রশ্নের জবাবে এ কথা বলেন তিনি।

আতিকুল ইসলাম বলেন, ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে আমাদের সততার কমতি না থাকলেও অভিজ্ঞতার ঘাটতি আছে। এজন্য ডেঙ্গু নিরাময়ে কলকাতার অভিজ্ঞতা কাজে লাগাতে সেখানকার ডেপুটি মেয়র কার্যালয়ের কর্মকর্তা অনিক ঘোষ শিগগিরই বাংলাদেশে আসবেন।

মেয়র বলেন, ‘আমি তাকে (অনিক ঘোষ) ফোন করেছিলাম। তিনি বলেছিলেন, আমাকে তাড়াতাড়ি আমন্ত্রণপত্র পাঠান। আমি আমন্ত্রণপত্র পাঠিয়ে দিয়েছি। আগামী রবিবার অনিক ঘোষ বাংলাদেশে আসবেন বলে কথা দিয়েছেন।’

আতিকুল ইসলাম বলেন, আমার সততার কমতি নেই। কিন্তু, অভিজ্ঞতার কমতি আছে। আমি মনে করি, ডেঙ্গু রোগের জন্য অবশ্যই ৩৬৫ দিনই গবেষণা করতে হবে। এটা সিজনাল না, যেকোনো সময় আসতে পারে। তাই, এটি নিয়ে জাতীয়ভাবে একটি গবেষণা কেন্দ্র তৈরি করা দরকার।

চলতি বছর মৌসুমের শুরু থেকে ডেঙ্গু পরিস্থিতি ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে। আগে মশাবাহিত এই রোগটি রাজধানীকেন্দ্রিক থাকলেও এবার তা সারাদেশে ছড়িয়ে পড়েছে। ইতোমধ্যে প্রাণঘাতী হয়ে ওঠা এই রোগে অর্ধশত মানুষ মারা গেছেন। হাসপাতালে ভর্তি আছেন ১০ হাজারের বেশি মানুষ।

ডেঙ্গুর ভয়াবহ বিস্তারের সময় দুই সিটি করপোরেশনের মশা মারার ওষুধ নিয়ে ব্যাপক বিতর্ক হয়। আন্তর্জাতিক উদারাময় গবেষণা কেন্দ্র আইসিডিডিআরবির গবেষণায় দেখা গেছে, এই ওষুধে মশা মরে না। তবে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন এমনকি স্থানীয় সরকারমন্ত্রী তাজুল ইসলাম এই প্রতিবেদন প্রত্যাখ্যান করেন। যদিও উচ্চ আদালতে এই শুনানিতে দুই নগরের আইনজীবীরা নতুন ওষুধ ব্যবহারের অঙ্গীকারের কথা বলেন। পরে সিটি করপোশেনের পক্ষ থেকে ওষুধ পাল্টানোর কথা আদালতকে জানানো হয়।

মেয়র আতিকুল ইসলাম বলেন, খারাপ ওষুধ নিয়ে যে প্রশ্ন এসেছে, সেটা নিয়ে বলতে চাই, আমার সিটি করপোরেশনে যে চালানটি এসেছিল, পরীক্ষার পরে দেখেছি, ওষুধগুলো কার্যকর নয়। এরপর ওষুধের ওই কোম্পানিকে আমরা কালো তালিকাভুক্ত করেছি। ওই চালানটিও বাতিল করা হয়েছে। খারাপ ওষুধ ছিটানো হচ্ছে না। পরবর্তী চালানের ওষুধ ছিটানো হচ্ছে।

ঢাকা উত্তরের মেয়র বলেন, গত সোমবার (২৯ জুলাই) সরকারের একটি উচ্চপর্যায়ের বৈঠক হয়। বৈঠকে দেখা যায়, ওষুধ আমদানিতে কিছু কিছু জটিলতা ছিল। যেমন, সারাবিশ্বে অনেক উন্নত ওষুধ আবিষ্কার হয়েছে। কিন্তু, ২০১৫ সাল থেকে সেগুলো আমদানি বন্ধ ছিল। তবে, যত সমস্যা ছিল, সেগুলোর সমাধান হয়ে গেছে। এখন রেজিস্ট্রেশন করা যে কেউ সে ওষুধ আনতে পারবে।

এ সময় ডেঙ্গু নিয়ে বাণিজ্য না করে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে দেয়া মূল্যতালিকা অনুযায়ী ফি নিতে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে বলেন তিনি। মেয়র আতিকুল বলেন, ডেঙ্গু নিয়ে কোনো বাণিজ্য করবেন না। স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে যে মূল্যতালিকা দেওয়া হয়েছে, সে অনুযায়ী ফি নেবেন। সব রোগীকে মশারির ভেতর রাখবেন। যে এলাকায় ডেঙ্গু হয়েছে অথবা ডেঙ্গু রোগী থাকেন, খবর দিলে সিটি করপোরেশন থেকে সেখানে স্প্রে করা হবে বলে জানান মেয়র।
নতুনখবর/তুম

About The Author

Number of Entries : 142

Leave a Comment

মুক্তগাছা ভবন, বাড়ি নং -১৩, ব্লক -বি, প্রধান সড়ক, নবোদয় হাউজিং, আদাবর, ঢাকা-১২০৭; সম্পাদক ও প্রকাশক; আলহাজ্ব মোঃ সাদিকুর রহমান বকুল ; জাতীয় দৈনিক আজকের নতুন খবর;

Scroll to top